দুধ একটি পুষ্টিকর এবং উপাদেয় পানীয়। আমিষের পাশাপাশি শর্করা, চর্বি, ভিটামিন এবং খনিজেরও এক চমৎকার উৎস দুধ। তাই দুধকে পরিপূর্ণ খাবার বলা হয়। প্রতিদিন দুধ খাবার তালিকায় রাখলে পুষ্টির চাহিদা অনেকাংশেই পূরণ হয়ে যায়। কিন্তু কতটুকু? ভালো হলেই কি প্রতিদিন অনেকখানি দুধ খেতে হবে? উত্তর হলো, ‘না’। ভালো হলেও প্রতিদিন অনেকখানি দুধ খাওয়া যাবে না। প্রতিদিন তিন গ্লাস দুধ (প্রায় ৭৫০ মিলি) খাওয়া খুবই স্বাভাবিক এবং নিরীহ মনে হলেও তা অপ্রয়োজনীয় এমনকি অনেক ক্ষেত্রে স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকরও হতে পারে। অতিরিক্ত দুধ পানের কারণে ক্লান্তি ভর করতে পারে শরীরে। দুধের মধ্যে উপস্থিত এ১ কেজিন প্রোটিন অন্ত্রে প্রদাহ সৃষ্টি করতে পারে, যার প্রতিক্রিয়ায় ফ্যাটিগ (ক্লান্তি) হতে পারে। তাছাড়াও অতিরিক্ত দুধ পানের ফলে উদরাস্ফীতি, পরিপাকে সমস্যা, ডায়রিয়া এমনকি চামড়ায় ব্রণের সমস্যা হতে পারে।

এত এত সমস্যা! তাহলে কি দুধ বাদ খাবার তালিকা থেকে? অবশ্যই না। কোনো খাবারই নিজ থেকে ভালো বা খারাপ নয়, দুধের ক্ষেত্রেও তাই। প্রতিদিন এক গ্লাস দুধ যেকোনো পূর্ণবয়স্কের স্বাস্থ্যরক্ষার জন্য আবশ্যক। তবে দু গ্লাসের অধিক পান না করাই শ্রেয়।